মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

পূর্ববর্তী মামলার রায়

                                                               অর্ডার সিট/ আদেশ নামা (অনুলিপি)

    মামলা নং- ৩০/২০১৮ইং                                                           তারিখঃ- ১১/০৩/২০১৮ইং

তারিখ

অর্ডার নং

যে আদেশ দেয়া হলো

স্বাক্ষর

 

১১/০৩/২০১৮ইং

 

 

 

০১

 

 

 

অভিযোগ নথিভূক্ত করা হলো। উভয় পক্ষকে নোটিশ মারফত বিবাদীয় বিষয়ে প্রমানাদি সহ আগামী ধার্য্য তারিখে হাজির থাকার জন্য আদেশ দেওয়া হল। ধার্য্য তারিখঃ ২২/০৩/২০১৮ইং ।

                                                                           স্বাক্ষরিত

 

২২/০৩/২০১৮ইং

 

 

 

 

০২

 

 

 

 

 বাদী হাজির মুলে অত্র আদালতে হাজির আছেন। বিবাদী গড় হাজির  পরবর্তী ধার্য্য তারিখ ২৯/০৩/২০১৮ইং। 

 

                                                                       স্বাক্ষরিত

 

২৯/০৩/২০১৮ইং

 

 

 

০৩

 

 

 

বাদী হাজির । বিবাদীগন গড় হাজির ।পরবর্তী ধার্য্য তারিখ ০২/০৪/২০১৮ইং। 

 

                                                                      স্বাক্ষরিত

 

 

০২/০৪/২০১৮ইং

 

 

 

 

 

 

 

০৪

 

 

 

 

 

 

 

বাদী হাজির । বিবাদীগন গড় হাজির । বিবাদীগনকে বারংবার নোটিশ করার পরও অত্র আদালতে হাজির হয় না এবং চুড়ামত্ম নোটিশ গ্রাম পুলিশ প্রদান করতে বাড়ীতে গেলে বিবাদী পক্ষ নোটিশ গ্রহন করেন না। বিবাদী পক্ষ নোটিশ গ্রহন না করায় গ্রাম আদালত অবমাননান করেন। বিবাদী পক্ষ হাজির না হওয়ায় ৩নং ওয়ার্ড  সদস্য মোঃ লুৎফর রহমানকে  উক্ত নালিশী সম্পত্তির বিষয়ে সরেজমিনে দতমত্ম পূর্বক প্রতিবেদন আগামী ০৮/০৪/২০১৮ইং জমা প্রদানের নির্দেশ দেওয়া হল।  ধার্য্য তারিখঃ ০৯/০৪/২০১৮ইং

 

                                      স্বাক্ষরিত

 

০৯/০৪/২০১৮ইং

০৫

 

 

 

 

 

 

 

 

 

৩নং ওয়ার্ড সদস্য মোঃ লুৎফর রহমান সরেজমিন প্রতিবেদন দাখিল করেছেন দেখলাম এবং বাদীর অভিযোগ কাগজ পর্যালোচনা করা হল। প্রকৃত বৃতামত্ম এই যে, দিনাজপুর জেলাাধীন বিরামপুর উপজেলার চরকাই মৌজার সি,এস ১৬৭ নং খতিয়ান ভুক্ত ২৮৯৩ নং দাগের মোট ৬৬ শতক  সম্পত্তি রেকডীয় মালিক হাসান উলস্ন্যা মন্ডল ভোগ দখলথাকা অবস্থায় ০৯/০৭/১৯৫৩ইং তারিখে ৯৪৬২নং রেজিষ্ট্রী খোষ কবলা দলিল মূলে আব্দুস সাত্তার বরাবর বিক্রয় করেন।অতঃপর আব্দুস সাত্তার মন্ডল খরিদা মূলে ভোগদখল থাকা অবস্থায় বিগত এস,এ রেকড আমলে চরকাই মৌজার ১৭৫নং খতিয়ানে ২৮৯৩ নং ৬৬শতক সম্পত্তি আব্দুস সাত্তার মন্ডলের নামে  রেকডভুক্ত হয়। আব্দুস সত্তার মন্ডল তাহার রেকড নামিয় সম্পত্তি বিক্রয়ের প্রসত্মাব দিলে আক্কাস আলী সরদার ক্রয়ের সন্মতিতে গত ২৫/১২/১৯৬৪ইং তারিখে সম্পাদিত ও গত ৩০/১২/১৯৬৪ইং তারিখে৭৬২৫নং খোষ কবলা দলিল মূলে হসত্মামত্মর করে দখলাদি ছাড়িয়াদেন। অতঃপর আক্কাস আলী ভোগ দখল থাকা অবস্থায় গত ১০/০৫/১৯৬৫ইং   রেজিষ্ট্রীকৃত দলিলে মোঃ মনছুর আলী বরাবর হসত্মামত্মর করে দখলাদি ছাড়ীয়াদেন। উক্ত নালিশী সম্পত্তি মনছুর আলী শামিত্মপুর্নভাবে ভোগ দখল থাকা অবস্থায় বাদী মোছাঃ মুর্শিদা বেগম বরাবর গত ০২/১১/২০১১ ইং তারিখে ৫০৫১নং রেজিষ্ট্রী হেবার ঘোষনা দলিল মুলে হসত্মামত্মর পূর্বক দখলাদি বুঝিয়া দেন। উক্ত সম্পত্তি বাদী তাহর নিজ নামে খারিজ করিয়া লয় যাহার কেস নং lX-l/১০৭৫/১১-১২ , খতিয়ান নং -৮১৬ নং এবং বর্তমান মাঠ জরিপে মালিকানাএবং দখল দৃষ্টে  বাদীর নামে ডি,পি ১১৮৮ নং খতিয়ান সঠিক ভাবে প্রকাশিত ও প্রচারিত হইয়াছে এবং বাদী বতমানে ইরি ২৯নং ধান চাষ আবাদ করেছেন।  অপরপক্ষ বিবাদী পক্ষ কোনদিনে নালিশী সম্পত্তি ভোগ দখল করেনি। বিবাদী পক্ষ নালিশী সম্পত্তির ফসল নষ্ট করার জন্য অপচেষ্টা চালাচ্ছে। বিবাদীগনকে বারংবার নোটিশ করার পরও অত্র আদালতে হাজির না হওয়ায় মামলাটি নথিজাত করা হল। বাদীকে উচ্চ আদালতের শরনাপন্ন হওয়ার জন্য সুপরামর্শ প্রদান করা হল

 

                                                                    স্বাক্ষরিত

 

 

     

ছবি


সংযুক্তি


সংযুক্তি (একাধিক)



Share with :

Facebook Twitter